আবহবিকার – প্রশ্ন উত্তর | Abohobikar – Question Answer

মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদের জন্য বিশেষ সুখবর ↓

WBP-CT-Banner_offer
abohobikar
শ্রেণি – নবম | বিভাগ – ভূগোল | অধ্যায় – আবহবিকার | Abohobikar (Chapter 5)

এই পর্বে রইল নবম শ্রেণির ভূগোল বিভাগের পঞ্চম অধ্যায় – প্রাকৃতিক ভূগোল – থেকে আবহবিকার সংক্রান্ত সম্পূর্ণ প্রশ্ন উত্তর আলোচনা।

সঠিক উত্তর নির্বাচন কর (MCQ)

[প্রতিটি প্রশ্নের প্রশ্নমান ১]

1। শিলামধ্যস্থ খনিজের সঙ্গে অক্সিজেনের রাসায়নিক বিক্রিয়ায় যে আবহবিকার সংঘটিত হয়, তা হল
a) অঙ্গারযোজন b) আর্দ্রবিশ্লেষণ c) জলযোজন d) জারণ

উত্তর- শিলামধ্যস্থ খনিজের সঙ্গে অক্সিজেনের রাসায়নিক বিক্রিয়ায় যে আবহবিকার সংঘটিত হয়, তা হল- d) জারণ।

2। গ্রানাইট টর সৃষ্টি হয়-
ক) শল্কমোচন খ) কার্বোনেশানে গ) জলযোজনে ঘ) কোনটিই নয়।

উত্তর- গ্রানাইট টর সৃষ্টি হয়- ক) শল্কমোচন।

3। উদ্ভিদহীন অতি ঢালু ভূভাগে গালি ক্রমশ গভীর হয়ে যে ভয়াবহ ক্ষয় হয়, তাকে বলে-
a) পাতক্ষয় b) র‍্যাভাইন ক্ষয় c) নালি ক্ষয় d) খাতক্ষয়

উত্তর- উদ্ভিদহীন অতি ঢালু ভূভাগে গালি ক্রমশ গভীর হয়ে যে ভয়াবহ ক্ষয় হয়, তাকে বলে- b) র‍্যাভাইন ক্ষয়।

4। শিলায় মরিচা পড়ে যে প্রক্রিয়ায় তা হল-
ক) জারন খ) জলযোজন গ) আর্দ্রবিশ্লেষণ ঘ) অঙ্গারযোজন

উত্তর- শিলায় মরিচা পড়ে যে প্রক্রিয়ায় তা হল ক) জারন

5। ক্ষয়ীভবন একটি-
ক) স্থিতিশীল প্রক্রিয়া খ) গতিশীল প্রক্রিয়া গ) নিরপেক্ষ প্রক্রিয়া ঘ) কোনটিই নয়

উত্তর- ক্ষয়ীভবন একটি খ) গতিশীল প্রক্রিয়া


আরো পড়ো → আকাশে সাতটি তারা প্রশ্ন ও উত্তর

সংক্ষিপ্ত উত্তরভিত্তিক প্রশ্ন (SAQ)

[প্রতিটি প্রশ্নের প্রশ্নমান ২]

1। আবহবিকার কাকে বলে?
উত্তর- যে প্রক্রিয়ায় বিভিন্ন প্রাকৃতিক শক্তির প্রভাবে ভূপৃষ্ঠের উপরের অংশের শিলাস্তর যান্ত্রিক ও জৈবিক প্রক্রিয়ায় চূর্ণ-বিচূর্ণ অথবা রাসায়নিক প্রক্রিয়ায় বিয়োজিত হয়ে মূল শিলা থেকে বিচ্ছিন্ন অবস্থায় সেখানেই পরে থাকে। এই প্রক্রিয়াটিই হল আবহবিকার।

2। আরোহণ কাকে বলে?
উত্তর- যে সকল প্রক্রিয়ায় বাহ্যিক প্রাকৃতিক শক্তির যেমন, নদনদী, হিমবাহ, বায়ুপ্রবাহ প্রভৃতির দ্বারা সঞ্চয়, অবক্ষেপণ ও অধঃক্ষেপণের মাধ্যমে ভূপৃষ্ঠের পলি, বালি প্রভৃতি সঞ্চিত হয়ে নতুন ভূমি গড়ে ওঠে, সেই প্রক্রিয়াকে আরোহণ বলে।

3। ট্যাফোনি কি?
উত্তর- সাধারণভাবে সমুদ্র উপকূলে অবস্থিত বেলেপাথর বা গ্রানাইট শিলার উপরিভাগে প্রায় ১ সেমি থেকে ১ মিটার ব্যাসযুক্ত গহ্বর লক্ষ্য করা যায়। একেই ট্যাফোনি বলে। উষ্ণতার পরিবর্তন, শিলার উপরিভাগের স্তরে লবনের রাসায়নিক বিক্রিয়ার ফলে এইধরনের ভূমিরূপের বৈশিষ্ট্য দেখতে পাওয়া যায়।

4। নগ্নীভবন কিভাবে ঘটে?
উত্তর- আবহবিকার, স্খলন ও ক্ষয়ীভবন প্রক্রিয়ার সম্মিলিত প্রভাবে ভূপৃষ্ঠের উপরের স্তরের বিচূর্ণীভূত পদার্থের অপসারণ ঘটলে নীচের শিলাস্তর উন্মুক্ত হয়ে পরে। আবহবিকার ও ক্ষয়ীভবনের এই মিলিত প্রক্রিয়ার ফলে নগ্নীভবন ঘটে।


আরো পড়ো → All Summer in a Day – Question Answer

সংক্ষিপ্ত ব্যাখামূলক উত্তরভিত্তিক প্রশ্ন (SAQ)

[প্রতিটি প্রশ্নের প্রশ্নমান ৩]

1। ‘জৈব আবহবিকার একই সঙ্গে যান্ত্রিক ও রাসায়নিক’ – প্রমাণ করো।
উত্তর- উদ্ভিদ ও প্রাণী পরোক্ষভাবে শিলাস্তরে বিচূর্ণীভবন করে থাকে। জৈবিক আবহবিকার যান্ত্রিক ও রাসায়নিক আবহবিকারের বিশেষ রূপ।
জৈব-যান্ত্রিক আবহবিকার: শিলাস্তরের মধ্যে উদ্ভিদের শিকড় প্রবেশ করলে, শিলাস্তরে চাপের সৃষ্টি হয়, এবং শিলাসমুহ আস্তে আস্তে চূর্ণ-বিচূর্ণ হয়ে যায়। কিছু প্রাণী যেমন – ইঁদুর, ছুঁচো, কেঁচো, খরগোশ প্রভৃতি শিলার মধ্যে গর্ত খুঁড়ে থাকে, এতে শিলাস্তর দুর্বল হয়ে ক্ষয়প্রাপ্ত হয়।
জৈব-রাসায়নিক আবহবিকার: শিলাসমুহ প্রাণীর দ্বারা রাসায়নিকভাবে বিয়োজিত হয়ে থাকে। যেমন – মস, লাইকেন জাতীয় শৈবাল শিলার উপরিভাগে জন্মায়, বৃষ্টির জলের সংস্পর্শে এসে হিউমাস গঠন করে, তা থেকে হিউমিক অ্যাসিডের সৃষ্টি হয়, শিলার মধ্যে অবস্থিত খনিজ এই অ্যাসিডের সংস্পর্শে এলে বিয়োজিত হয় এবং শিলায় আবহবিকার ঘটে।

2। রাসায়নিক আবহবিকারে শিলার কী কী পরিবর্তন ঘটে?
উত্তর- রাসায়নিক আবহবিকারের ফলে শিলাগঠনকারী খনিজের মৌলিক পরিবর্তন ঘটে এবং গৌণ খনিজে পরিণত হয়।
চুনাপাথরযুক্ত অঞ্চলে প্রাকৃতিক কার্বন ডাই অক্সাইডের রাসায়নিক বিক্রিয়ার ফলে চুনাপাথর বিয়োজিত এবং ক্ষয়প্রাপ্ত হয়ে বিভিন্ন ভূমিরূপ গঠন করে। যেমন- স্ট্যালাকটাইট এবং স্ট্যালাকমাইট।
লৌহ মিশ্রিত খনিজের সঙ্গে বায়ুমণ্ডলের উপস্থিত অক্সিজেনের রাসায়নিক বিক্রিয়ার ফলে লৌহ আকরিকটি গৌণ খনিজে পরিণত হয়।
জলযোজন প্রক্রিয়ায় শিলাগঠনকারী খনিজগুলি দৃঢ়সংবদ্ধ থাকেনা এবং সহজেই ক্ষয়প্রাপ্ত হয়।


আরো  পড়ো → বাস্তব সংখ্যার গাণিতিক সমস্যার সমাধান

দীর্ঘ উত্তরধর্মী প্রশ্ন (LA)

[প্রতিটি প্রশ্নের প্রশ্নমান ৫]

1। অক্সিডেশন বা জারণ প্রক্রিয়ায় শিলা কিভাবে বিয়োজিত হয় উদাহরণসহ লেখো।
উত্তর- পদ্ধতি: লৌহ মিশ্রিত খনিজের সঙ্গে বায়ুমণ্ডলের উপস্থিত অক্সিজেনের রাসায়নিক বিক্রিয়ার ফলে অক্সিডেশন বা জারণ ঘটে।
লৌহ আকরিকে অবস্থিত লোহা ‘ফেরাস অক্সাইড’ হিসেবে অবস্থান করে, যার মৌলিক গঠন সহজে ক্ষয়প্রাপ্ত হয়না। কিন্ত জারণ পদ্ধতিতে, বাতাসের অক্সিজেনের সংস্পর্শে এসে মূল খনিজ লোহা ‘ফেরিক অক্সাইডে’ পরিণত হয়ে লিমোনাইট সৃষ্টি করে যা সহজেই ভেঙে যায়, এরফলে লৌহ আকরিকটি বিয়োজিত হয়ে গৌণ খনিজে পরিণত হয় এবং আবহবিকারপ্রাপ্ত হয়।
বিক্রিয়া: \(4FeO\) (লোহা) + \(2H_2O\) (জল) + \(O_2\) (অক্সিজেন) = \(2Fe_2O_3,3H_2O\) (লিমোনাইট)
উদাহরণ: শিলায় মরচে পড়া হল জারণ প্রক্রিয়ার অন্যতম উদাহরণ। শিলা গঠনকারী লৌহযুক্ত খনিজের সঙ্গে বাতাসে উপস্থিত অক্সিজেন ও জলের রাসায়নিক বিক্রিয়ার ফলে শিলায় মরচে পরে। লোহা ফেরাস অক্সাইড থেকে ফেরিক অক্সাইডে জারিত হলে, শিলার ওপর বাদামি রঙের মরচের আস্তরণ পরে।

আরো পড়ো → পৃথিবীপৃষ্টে কোনো স্থানের অবস্থান নির্ণয় অধ্যায়ের প্রশ্ন উত্তর

WBPorashona.com-এর পোস্ট আপডেট নিয়মিত পাবার জন্য –


আমাদের কাজ থেকে উপকৃত হলে এই লেখাটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করার অনুরোধ রইল।

WBP-YT-Banner